করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে অর্থিকভাবে বিপদে পড়া অসহায় মানুষের সাহায্যে দেশের হয়ে টেস্টে প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি করা ব্যাটটি নিলামে তুলেছিলেন মুশফিকুর রহিম। গত বৃহস্পতিবার (১৪ মে) নিলাম শেষ হলেও একদিন পর শুক্রবার (১৫ মে) রাতে নিলামে বিজয়ীর নাম ঘোষণা করা হয়। ‘স্পোর্টস ফর লাইফ’ ফেইসবুক পেজের লাইভে মুশফিকুর রহিম জানিয়েছেন পাকিস্তানের সাবেক ক্রিকেটার শহীদ আফ্রিদি সেই ব্যাটটি কিনে নিয়েছেন।

মুশফিকুর রহিম জানিয়েছেন শহীদ আফ্রিদির ফাউন্ডেশন ব্যাটটি ২০ হাজার ডলারে কেনার প্রস্তাব দেয়। যা বাংলাদেশী মুদ্রায় দাঁড়ায় প্রায় ১৭ লাখ টাকা। নিলামে সর্বোচ্চ দাম হাঁকিয়ে বাংলাদেশের ক্রিকেটের ইতিহাসের সাক্ষীর ব্যাটটি নিজের ফাউন্ডেশনের জন্য কিনে নেন শহীদ আফ্রিদি।

‘স্পোর্টস ফর লাইফ’ ফেসবুক পেজের লাইভে এসে মুশফিক সঞ্চালকের প্রশ্নের উত্তরে জানান, ‘শহীদ আফ্রিদি ব্যক্তিগতভাবে আমার সঙ্গে যোগযোগ করেন। তারপর আমি তাকে লিংক পাঠিয়েছলাম। আফিরদি সেটা দেখেন যে নিলামে যে দর উঠেছে তা তার সামর্থের মধ্যে নয়। আপনারা জানেন প্রথম দিকে আমাদের অনেক ভুয়া বিড উঠেছিল। সব শেষে তিনি ১৩ মে আনুষ্ঠানিক অফার লেটার পাঠান। যেটার দাম ২০ হাজার মার্কিন ডলার, বাংলাদেশি মুদ্রায় ১৬ লাখ ৮০ হাজার টাকারও বেশি। এই টাকায় তিনি আমার ব্যাটটা কিনে নিয়েছেন। পরে তার ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে চিঠি পাঠানো হয়। পিকাবু বিষয়টি চূড়ান্ত করেছে।

মুশফিক বলেন আফ্রিদির ব্যাট কেনাতে বড় ভূমিকা রেখেছেন তামিম ইকবাল। সমন্বয়কের ভূমিকা পালন করেছেন টাইগারদের ওয়ানডে অধিনায়ক। এ ব্যাপারে মুশি বলেন, ‘এই বিষয়ে আমার খুবই ভালো বন্ধু তামিম ইকবাল আমাকে খুবই সহযোগিতা করেছেন। আপনারা জানেন যে তামিমের সঙ্গে আফ্রিদির ভালো সম্পর্ক। তারা এক সঙ্গে খেলেছেন। তামিম এই বিষয়ে অনেক সহযোগিতা করেছে আসলে, অনেক ভালো কিছু পরামর্শও দিয়েছে।’

মুশফিকের ব্যাটের ভুয়া বিড ৪৫ লাখ ছাড়িয়েছিল। বিষয়টির কড়া সমালোচনাও করেছেন সাবেক এই অধিনায়ক। উল্লেখ্য, আগেই ঘোষণা দেওয়া হয়েছিল ব্যাট বিক্রির পুরো অর্থই ব্যয় করা হবে করোনাভাইরাসের কারণে আর্থিকভাবে বিপদে পড়া মানুষদের জন্য। ব্যাটটির ভিত্তিমূল্য ধরা হয়েছিল ৬ লাখ টাকা।

২০১৩ সালের গল টেস্টে এই ব্যাট দিয়ে অপরাজিত ২০০ রানের ইনিংস খেলেছিলেন মুশফিক। যেটা বাংলাদেশের হয়ে প্রথম ডাবল সেঞ্চুরির ঘটনা। পরে এই ব্যাট দিয়ে আরও বেশ কয়েকটি বড় ইনিংস খেলেছেন বলে জানিয়েছিলেন অভিজ্ঞ এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান।

এর আগে সাকিব আল হাসান ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে খেলা ব্যাটটি নিলামে তোলেন। যেটা বিক্রি হয় ২০ লাখ টাকায়।

Leave a Reply